Text size A A A
Color C C C C
পাতা

কী সেবা কীভাবে পাবেন

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের যুব নীতিমালা অনুযায়ী ১৮-৩৫ বয়সী বেকার যুবক ও যুব মহিলাদের যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর থেকে নিম্নে বর্ণিত সেবাসমূহ প্রদান করা হয়।

উদ্বুদ্ধকরণ : অপ্রাতিষ্ঠানিক ট্রেডের ক্ষেত্রে কমপক্ষে ৫ম শ্রেণী পর্যন্ত এবং প্রাতিষ্ঠানিক ট্রেড্রের ক্ষেত্রে কমপক্ষে ৮ম শ্রেণী পাশ বেকার যুবদের এলাকার চাহিদা অনুযায়ী আয়বর্ধক বিষয়ে প্রশিক্ষণ গ্রহণের জন্য উদ্বুদ্ধ করা হয়।

বেকার যুবক প্রশিক্ষণ প্রদান : যুব সমাজকে জাতীয় উন্নয়ন প্রক্রিয়ায় সম্পৃক্তকরণের জন্য তাদেরকে উদ্বুদ্ধকরণ, জ্ঞান ও দক্ষতা বৃদ্ধিমূলক প্রশিক্ষণ প্রদানের মাধ্যমে দক্ষ মানব সম্পদে পরিনত করার লক্ষ্যে যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর, ভাংগা উপজেলা কাজ করে যাচ্ছে। যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর, ভাংগা হতে ১৮-৩৫ বছর সয়সী বেকার যুবক ও যুব মহিলাদের আত্মকর্মসংস্থানের জন্য নিম্নলিখিত ট্রেড সমূহে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়ে থাকে।

     ক) প্রাতিষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ : প্রশিক্ষণ কোর্সের নাম, মেয়াদ ও ধরণ ভর্তি ফি শিক্ষাগত যোগ্যতা:

ক্রমিক নং

প্রশিক্ষণ কোর্সের নাম

মেয়াদ ও ধরণ

ভর্তি ফি

শিক্ষাগত যোগ্যতা

০১

কম্পিউটার (বেসিক)

৬ মাস (অনাবাসিক)

১,০০০/=

এইচ,এস,সি

০২

মর্ডাণ অফিস ম্যানেজমেন্ট এন্ড কম্পিউটার এ্যাপ্লিকেশন

৬ মাস (অনাবাসিক)

৫০০/=

এইচ,এস,সি

০৩

ইলেকট্রিক্যাল এন্ড হাউজ ওয়্যারিং

৬ মাস (অনাবাসিক)

৩০০/=

৮ম শ্রেণী পাশ

০৪

ইলেকট্রনিক্স

৬ মাস (অনাবাসিক)

৩০০/=

৮ম শ্রেণী পাশ

০৫

রেফ্রিজারেশন এন্ড এয়ারকন্ডিশনিং

৬ মাস (অনাবাসিক)

৩০০/=

৮ম শ্রেণী পাশ

০৬

পোশক তৈরী

৬ মাস-১টি ও ৩ মাস- ২টি (অনাবাসিক)

৫০/=

৮ম শ্রেণী পাশ

০৭

ব্লক বাটিক ও স্ক্রীন প্রিন্টিং

৪ মাস (অনাবাসিক)

৫০/=

৮ম শ্রেণী পাশ

০৮

মৎস্য চাষ

১ মাস (অনাবাসিক)

৫০/=

৮ম শ্রেণী পাশ

০৯

গবাদি পশু, হাঁস-মুরগী পালন, প্রাথমিক চিকিৎসা, মৎস্য চাষ ও কৃষি

২ মাস-১৫ দিন (আবাসিক)

১০০/= টাকা,(প্রশিক্ষণার্থীদেরকে জন প্রতি ১৫০০/= টাকা হারে ভাতা প্রদান করা হয়)

৮ম শ্রেণী পাশ

উপরোক্ত কোর্সসমূহে ভর্তির জন্য জেলা কার্যালয়ে উপ-পরিচালক এবং উপজেলা কার্যালয়ে উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তার সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে।

     খ) অপ্রাতিষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ : কমপক্ষে ৫ম শ্রেণী পাশ, ১৮ বছর হতে ৩৫ বছর বয়সী বেকার যুবক ও যুব মহিলাগণ প্রশিক্ষণ গ্রহণের জন্য উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা বরাবরে ১ কপি ছবি ও স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের নাগরিক সনদপত্র/ জাতীয় পরিচয় পত্র সহ সাদা কাগজে আবেদন করবেন। অত:পর ক্রেডিট সুপার ভাইজার উক্ত আবেদন পত্র যাচাই বাছাই করে ৪০ জনের তালিকা উপজেলা যুব উ্ন্নয়ন কর্মকর্তা বরাবরে পেশ করবেন। উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা উক্ত তালিকা উপ-পরিচালক বরাবরে প্রেরণ পূর্বক প্রশাসনিক অনুমোদনের পর নির্ধারিত তারিখ ও সময়ে প্রনীত প্রশিক্ষণ প্রোগ্রাম অনুযায়ী প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু ও পরিচালনা করবেন।

      অপ্রাতিষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য প্রধান কার্যালয় কর্তৃক নির্ধারিত ৪০ টি ট্রেডে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়।

যুব ঋণ বিতরণ : প্রশিক্ষিত বেকার যুবক ও যুব মহিলাদের প্রকল্পের উন্নয়নের জন্য প্রথমে উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তার বরাবরে সাদা কাগজে আবেদন করতে হবে। ক্রেডিট সুপার ভাইজার ও উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা সরেজমিনে প্রকল্প পরিদর্শন ও যাচাই বাছাই করে ঋণের আবেদনকারীর প্রয়োজনীয় কাগজ পত্র জমা নিয়ে জেলা/ উপজেলা যুব ঋণ কমিটির মাধ্যমে চূড়ান্ত যাচাই বাছাই করে ঋণ অনুমোদন দেয়া হয়।

       ক) অপ্রাতিষ্ঠানিক যুব ঋণ : অপ্রাতিষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ গ্রহণকারী যুবক ও যুব মহিলাদের সংশ্লিষ্ঠ বিষয়ে প্রকল্প সম্প্রসারনের জন্য ২০,০০০/= টাকা থেকে ৪০,০০০/= টাকা পর্যন্ত যুব ঋণ প্রদান করা হয়।

      খ) প্রাতিষ্ঠানিক যুব ঋণ : প্রাতিষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ গ্রহণকারী যুবক ও যুব মহিলাদের সংশ্লিষ্ট বিষয়ে প্রকল্প সম্প্রসারনের জন্য ৪০,০০০/= টাকা থেকে ৭৫,০০০/= টাকা যুব ঋণ প্রদান করা হয়।

যুব সংগঠন তালিকাভূক্তকরণ সংক্রান্ত : দেশের উন্নয়ন প্রক্রিয়ার যুব সংগঠন সহযোগী শক্তি হিসাবে বলিষ্ঠ আবদান রাখতে সক্ষম। এরই অংশ হিসাবে জুন/২০১৩ ইং পর্যন্ত ১২ টি যুব সংগঠন যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর, ভাংগা হতে তালিকাভূক্ত করা হয়েছে।

যুব সংগঠনকে অনুদান প্রদান : যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের যুব কল্যাণ তহবিল থেকে যুব সংগঠনসমূহকে প্রকল্প ভিত্তিক অনুদান প্রদান করা হয়।

জাতীয় যুব পুরষ্কার প্রদান : সফল আত্মকর্মী যুবক ও যুব মহিলা এবং শ্রেষ্ঠ যুব সংগঠকদের (নারী ও পুষুষ) জাতীয় যুব পুরষ্কার নীতিমালা অনুযায়ী জাতীয় যুব পুরষ্কার প্রদান করা হয়।